গার্ড পেট্রল সিস্টেম

সিকিউরিটি গার্ড সুপারভাইজাররা ঠিকমত টহল দিচ্ছে নাকি ফাঁকি দিচ্ছে এটা বোঝার জন্য অলেফিন্স ট্রেড কর্পোরেশন আপনাদের কাছে নিয়ে আসেছেগার্ড পেট্রল সিস্টেম। এই ধরনের সিস্টেম কে অনেক সময় গার্ড ট্যুর সিস্টেম ও বলে থাকে। আজকে আমরা জানব গার্ড পেট্রল সিস্টেম কি ভাবে কাজ করে।

গার্ড ট্যুর সিস্টেম হ’ল গার্ড সুপারভাইজার এর লগ এন্ট্রি করার ব্যবস্থা। এটি নিশ্চিত করতে সহায়তা করে যে গার্ড সুপারভাইজার তার নির্ধারিত সময়ে নির্ধারিত জায়গায় টহল দিতে উপস্থিত হয়েছেন। হ্যান্ডহেল্ড ডেটা লগার এবং আরএফআইডি সেন্সরগুলির উপর ভিত্তি করে এই ব্যবস্থাটি কাজ করে। গার্ড সুপারভাইজার তাদের টহলের নির্দিষ্ট পয়েন্টগুলিতে লাগিয়ে রাখা আরএফআইডি সেন্সরগুলোতে হ্যান্ডহেল্ড ডেটা লগার বা গার্ড ট্যুর ডিভাইসটি স্পর্শ করতেই সময় রেকর্ড হয়ে যায়। ডিভাইসটি এনালগ হলে আপনার কম্পিউটারে সংযুক্ত করে রিপোর্ট দেখতে পাবেন আর ডিজিটাল হলে আপনার মোবাইলে সরাসরি রিয়েল টাইম এসএমএস চলে যাবে।

How To Work Guard Tour System

এই সিস্টেমে কি কি থাকে ?

গার্ড ট্যুর আরএফআইডি চেকপয়েন্টঃ যেই কয়টি পয়েন্টে সুপারভাইজাররা টহলের সময় যাবেন সেসকল জায়গায় এরকম চেকপয়েন্ট একটি করে লাগিয়ে রাখতে হবে। স্ক্রু দিয়ে, আঠা দিয়ে বা বেঁধে যেকোনভাবে খুব সহজেই আপনি এগুলো লাগিয়ে রাখতে পারেন।

গার্ড আইডি ট্যাগঃ একাধিক সুপারভাইজার থাকলে সবার জন্য একেকটা গার্ড আইডি ট্যাগ ব্যবহার করতে হবে। পেট্রোল শুরু করার পূর্বে গার্ড ট্যুর ডিভাইসে এই আইডি ট্যাগ স্পর্শ করালেই ডিভাইস বুঝতে পারবে এখন কে পেট্রোল করছে। ফিঙ্গার সিস্টেম ডিভাইস হলে এই ট্যাগের প্রয়োজন হবেনা। সেক্ষেত্রে ডিভাইসে ফিঙ্গার দিয়ে সুপারভাইজার তার পেট্রোল শুরু করবেন। আবার প্রতিটি চেকপয়েন্টে গিয়ে ফিঙ্গার দিয়ে তারপর চেকপয়েন্টে ডিভাইসটি স্পর্শ করবেন।

গার্ড ট্যুর ডিভাইসঃ এই ডিভাইসটি সুপারভাইজারের সাথে থাকবে। একবার চার্জ দিলেই প্রায় ২০ থেকে ৩০ দিন ব্যবহার করা যায়। নিজ নিজ আইডি ট্যাগ এই ভিভাইসে স্পর্শ করে সুপারভাইজারগণ তাদের কাজ শুরু করবেন। এরপর প্রতিটি পয়েন্টে গিয়ে যেখানে থাকা আরএফআইডি চেকপয়েন্টগুলো স্পর্শ করবেন। এর ফলে এই ডিভাইসে সুপারভাইজারের পরিচয় এবং তিনি কোন কোন পয়েন্টে কোন সময় গেলেন তা এন্ট্রি হয়ে যাবে। ডাটা কেব্‌ল দিয়ে এই ডিভাইসটি আপনার কম্পিউটারে সংযুক্ত করলে সেখানে এই ডাটা দেখতে পাবেন। ডিভাইসটি ডিজিটাল হলে আপনার ফোনে সাথে সাথেই এসএমএস চলে যাবে।

  • সফটওয়ারঃ এই সফটওয়্যার ব্যবহার করে প্রতিটি চেকপয়েন্ট আপনার পছন্দমত নাম দিয়ে নামকরন করে নিবেন। গার্ড আইডি ট্যাগ গুলোকেও সুপারভাইজারদের নাম অনুযায়ী নামকরন করে নিবেন। তখন রিপোর্টে নাম সহ আপনি যেকোন জায়গার বা যেকোন সুপারভাইজারের প্রতিদিনের রিপোর্ট দেখতে পাবেন। রিপোর্টে লাল সবুজ রঙ দেখেই আপনি বুঝতে পারবেন কোথায় কোন সুপারভাইজার কোন জায়গায় গিয়েছেন বা যান নাই। ডাটা ব্যাকআপ নেয়ার অপশন রয়েছে এই সফটওয়ারে। তাই ডাটা হারাবার ভয় নেই।

গার্ড ট্যুর সিস্টেমের মডেলসমুহঃ

অলিফিন্স ট্রেড কর্পোরেশন কয়েকটি ভিন্ন ভিন্ন মডেলের গার্ড ট্যুর সিস্টেম সরবরাহ করে থাকে। যেমন-

গার্ড ট্যুর সিস্টেমের বিশেষ বৈশিষ্ট্যঃ

  • চমৎকার ডিজাইন।  
  • প্রতি মিনিটে ১৫ হাজার ডাটা ট্রান্সফার করতে সক্ষম ইউএসবি পোর্ট। 
  • সময়,তাপমাত্রা, কম্পাস এবং ব্যাটারির চার্জ দেখার জন্য স্ক্রিন।
  • এক চার্জে ১.৫ লক্ষ বার রিডিং করতে সক্ষম। ফলে ডিভাইসোটি ২০/৩০ দিন টানা ব্যবহার করা যাবে।   
  • ডিভাইসটি অব্যব্যরিত থাকলে প্রায় ২০ বছর রিসিভকৃত ডাটা সুরক্ষিত থাকে।

এছাড়া আরো বিস্তারিত জানতে আজ-ই যোগাযোগ করুন আমাদের অফিসে।

আরো জানুন